মুম্বইকে তাদের ঘরের মাঠে ২-০ গোলে হারিয়ে প্রথম চারে উঠে এল মাত্তেরাজ্জির চেন্নাই। একইসঙ্গে মেন্ডোজার জোড়া গোল বুঝিয়ে দিল সোনার বুটের দৌড়ে তিনিও অন্যতম দাবিদার।
হিরো অফ দ্য ম্যাচ- মেন্ডোজা। অবশ্যই তিনি যোগ্যতম দাবিদার। জোড়া গোল করে চেন্নাইকে তালিকার প্রথম চারে তুলে এনেছেন। প্রতিটি ম্যাচে যেভাবে চেন্নাইয়ের আক্রমণভাগ  নিজেদের শক্তির প্রদর্শন করছে তাতে বলাই যায় আইএসএল ২০১৫-এর দাবিদার এলানোর দল। এদিন মাঝমাঠে থই সিং ও জয়েশ রাণের বোঝাপড়া গোল দুটি তুলে আনায় সাহায্য করেছে। এছাড়া বলতে হয় অধিনায়ক এলানো ব্লুমারের কথা। আজ তিনি ছিলেন অলরাউন্ডার। আর মাঝমাঠ সচল রাখার দায়িত্বে রাফায়েল অগুস্তো ছিলেন অনবদ্য। তবে আগের ম্যাচে ভাল পারফরম্যান্স করা সত্ত্বেও প্রথম একাদশে সুযোগ না পাওয়া দেবজিত মজুমদারের আত্মবিশ্বাসে চিড় ধরাবে।
অন্যদিকে মুম্বইকে ছন্দে ফিরতে হলে দলের বোঝাপড়ার দিকে নজর দিতে হবে কোচ আনেলকাকে। এদিন সুনীল ছেত্রী মাঠে থাকলেও তিনি নজর কাড়তে ব্যর্থ। সোনি নরদে, সুনীল ছেত্রীর মত ফুটবলার যে দলে থাকে তাদের থেকে অনেক  প্রত্যাশা থাকে সমর্থকদের। আজ নিজেদের নামের প্রতি সুবিচার করতে ব্যর্থ ওরা। যেকোন আক্রমণ থেকে গোল তুলে আনতে প্রয়োজন মাঝমাঠের সঙ্গে আক্রমণভাগের বোঝাপড়া। মুম্বইয়ের এদিনের ম্যাচে সেটার ছিল বড়ই অভাব।
তাই দলকে জয়ের পথে ফেরাতে দলের বোঝাপড়া গড়ে তোলার দিকে নজর দিতে হবে আনেলকাকে।